সর্বশেষখেলা

দক্ষিণ আফ্রিকাকে হারিয়ে ফাইনালে অস্ট্রেলিয়া

এর আগেও বেশ কয়েকবার বিশ্বকাপের সেমিফাইনালে উঠেছে দক্ষিণ আফ্রিকা।

দক্ষিণ আফ্রিকাকে হারিয়ে ফাইনালে অস্ট্রেলিয়া এর আগেও বেশ কয়েকবার বিশ্বকাপের সেমিফাইনালে উঠেছে দক্ষিণ আফ্রিকা। তবে একবারও ফাইনাল পর্যন্ত পৌঁছুতে পারেনি তারা।

ফাইনালে

প্রতিবারই চাপে ভেঙে পড়ার কারণে চোকার্স খেতাব পায় প্রোটিয়ারা। অস্ট্রেলিয়া এবার আরও একবার বিশ্বকাপের ফাইনালে উঠতে ব্যর্থ দক্ষিণ আফ্রিকা। চলমান বিশ্বকাপের দ্বিতীয় সেমিফাইনালে শ্বাসরুদ্ধকর ম্যাচে অস্ট্রেলিয়ার কাছে ৩ উইকেটে হেরেছে দক্ষিণ আফ্রিকা। আর এই জয়ে ফাইনালে স্বাগতিক ভারতের সঙ্গী অজিরা।

বৃহস্পতিবার (১৬ নভেম্বর) কলকাতার ইডেন গার্ডেন স্টেডিয়ামে টস জিতে ব্যাট করার সিদ্ধান্ত নেয় প্রোটিয়ারা। শুরুতে বিপর্যয়ে পড়লেও ডেভিড মিলারের সেঞ্চুরিতে লড়াকু সংগ্রহ পায় দক্ষিণ আফ্রিকা। ৪৯ ওভার ৪ বলে ২১২ রানে অলআউট হয় দক্ষিণ আফ্রিকা। ১১৬ বলে ১০১ রান করেন মিলার। অস্ট্রেলিয়ার পক্ষে সর্বোচ্চ ৩টি করে উইকেট নেন মিচেল স্টার্ক ও প্যাট কামিন্স।

২১৩ রানের টার্গেটে ব্যাট করতে নেমে উড়ন্ত সূচনা পায় অস্ট্রেলিয়া। উদ্বোধনী জুটিতে ৬০ রান যোগ করেন দুই ওপেনার ডেভিড ওয়ার্নার ও ট্রাভিস হেড।তবে এক রানের ব্যবধানে জোড়া উইকেট হারায় অস্ট্রেলিয়া।

অস্ট্রেলিয়া

অস্ট্রেলিয়া ওয়ার্নার ১৮ বলে ২৯ ও শূন্য করে আউট হন মিচেল মার্শ। এরপর ক্রিজে আসা স্টিভেন স্মিথকে সঙ্গে নিয়ে ব্যাট করতে থাকেন হেড। আগ্রাসী ব্যাটিংয়ে ফিফটি পূরণ করেন তিনি। তবে দলীয় ১০৬ রানে ৪৮ বলে ৬২ রান করে আউট হন হেড।

হেডের বিদায়ের পর ৩১ রানের মধ্যে আরও দুই উইকেট হারায় অজিরা। এরপর জস ইংলিশকে সঙ্গে নিয়ে দেখেশুনে খেলতে থাকেন স্মিথ। তবে দলীয় ১৭৪ রানে ৬২ বলে ৩০ রান করে আউট হন স্মিথ।

এরপর মিচেল স্টার্ককে সঙ্গে নিয়ে ব্যাট করে থাকেন ইংলিশ। তবে দলীয় ১৯৩ রানে ৪৯ বলে ২৮ রান করা ইংলিশকে আউট করে ম্যাচ জমিয়ে তোলেন গেরাল্ড কোয়ার্টজে।

তবে আর কোনো বিপদ না ঘটিয়ে স্টার্ককে সঙ্গে দেখেশুনে খেলে ১৬ বলে হাতে রেখে দলের জন্ম নিশ্চিত করে মাঠে ছাড়েন অজি অধিনায়ক প্যাট কামিন্স। প্রোটিয়াদের পক্ষে গেরাল্ড কোয়ের্টজে ও তাররিশ সামশি নেন ৩টি করে উইকেট।

আরও পড়ুন

ম্যাচেই ইতিহাস গড়লেন ম্যাক্সওয়েল একায় ২০১ রান করে অপরাজিত

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button